কেন মানুষের হেঁচকি আসে, হাতে-পায়ে ঝিঁঝি ধরে ঘুমে বোবা ধরে!

নিজস্ব প্রতিবেদক
মোঃ তারিকুল ইসলাম, চবি ক্যাম্পাস প্রতিনিধি, জেলা প্রতিনিধি
প্রকাশিত: শনিবার ১১ই জুলাই ২০২০ ০৯:৪২ অপরাহ্ন
কেন মানুষের হেঁচকি আসে, হাতে-পায়ে ঝিঁঝি ধরে ঘুমে বোবা ধরে!

মানুষ হিসাবে আমরা সামাজিক জীব। আমরা অনেক সময় হঠাৎ করেই আমাদের শরীরে বিভিন্ন ধরনের অস্বাভাবিক শারীরিক অনুভূতি ফেস করি। সেগুলোর  মধ্যে অন্যতম হলো হঠাৎ করে হেঁচকি আসা। আবার মাঝেমধ্যে হাত বা পায়ে ঝিঁঝি ধরা আবার অনেক সময় রাতে ঘুমের মধ্যে বোবা ধরা। তবে এসব কেন হয়, চলুন জেনে নেওয়া যাক আজকের এই প্রতিবেদনে, মানুষের কেন হেঁচকি আসে, কেনো হাত-পায়ে ঝিঁঝি ধরে আবার কেনইবা ঘুমের ভিতর মানুষের বোবা ধরে!

মানুষের হেঁচকি আসে কেন?   

দ্রুত খাওয়া বা অন্য কোন কারণে ডায়াফ্রাম বা  বক্ষচ্ছদা নামক ফুসফুসের নিচের পাতলা মাংসপেশির স্তর হঠাৎ সংকোচিত হয়ে ভোকাল কর্ড সাময়িকভাবে বন্ধ হলে হেঁচকির সৃষ্টি হয়।হাত বা পায়ে ঝিঁঝি ধরে (Temporary Paresthesia) কেন?

মানবদেহে সর্বত্র অসংখ্য স্নায়ু রয়েছে, যেগুলো রক্তের মাধ্যমে মস্তিষ্ক ও দেহের নানা অংশের মধ্যে তথ্য আদান-প্রদান করলে নানা অনুভূতি পাওয়া যায়। বসা বা শোয়ার সময় কিছু সময় ধরে দেহের কোনো স্থানের রক্তনালি বা স্নায়ুর উপর চাপ পড়লে মস্তিষ্কে তথ্য যেতে পারে না। ফলে সেস্থানে ঝিঁঝি ধরার মতো অস্বাভাবিক অনুভূতির সৃষ্টি হয়।

মানুষের বোবা ধরা (Sleeping Paralysis) হয় কেন?

ঘুমের সময় REM (Rapid Eye Movement) ও NREM (Non-Rapid Eye Movement)  নামে দুটি পর্যায় সংঘটিত হয়।  এক্ষেত্রে REM-এ চোখের বিক্ষিপ্ত পরিচলন শুরু হয় এবং মানুষ স্বপ্ন দেখতে থাকে। এ সময় চোখ ব্যতীত পুরো দেহ স্থিতাবস্থায় থাকে পেশিগুলোর কার্যকারিতাও বন্ধ থাকে। এ চক্র শেষ হবার আগে কেউ জেগে গেলেই এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয় যে সে কথা বলতে বা নড়তে পারে না,  অর্থাৎ বোবা ধরে।